এই মুহূর্তে কলকাতা

রাজ্যের ডেয়ারি ফার্ম এবং ও গোশালা গুলি থেকে দূষণের মাত্রা কমাতে দূষণ নিয়ন্ত্রণ পর্ষদের নয়া গাইডলাইন।


কলকাতা , ৬ অক্টোবর:- রাজ্যের ডেয়ারি ফার্ম এবং ও গোশালা গুলি থেকে দূষণের মাত্রা কমাতে দূষণ নিয়ন্ত্রণ পর্ষদ গাইডলাইন জারি করেছে। কেন্দ্রীয় দূষণ নিয়ন্ত্রণ পর্ষদ এর ওই নির্দেশিকায় এই ধরনের ডেয়ারি ফার্ম ও গোশালা গুলিতে পরিচ্ছন্নতা বজায় রাখা নিয়মিত জীবাণুমুক্ত করা এবং নিয়মিত পরিবেশ সংক্রান্ত সমীক্ষা করানোর মতো বিভিন্ন বিষয় উল্লেখ করা হয়েছে। রাজ্য দূষণ নিয়ন্ত্রণ পর্ষদ এর চেয়ারম্যান কল্যাণ রুদ্র জানিয়েছেন কেন্দ্রীয় দূষণ নিয়ন্ত্রণ পর্ষদ এর ওই নির্দেশিকা ইতিমধ্যেই রাজ্যের প্রাণী সম্পদ বিকাশ মন্ত্র এবং নগর উন্নয়ন দপ্তরের কাছে রূপায়নের জন্য পাঠানো হয়েছে। তিনি বলেন ২০১৯ সালের গবাদিপশুর সমীক্ষা অনুযায়ী রাজ্যে মোট গবাদি পশুর সংখ্যা প্রায় সাড়ে সাত লক্ষের কাছাকাছি।

এই পশুগুলি কে রাখার ব্যবস্থা বহু জায়গাতেই যথাযথ নয়। সে কারণে জাতীয় পরিবেশ আদালতের নির্দেশে ডেয়ারি ফার্ম এবং গোশালা গুলির পরিছন্নতা বাড়ানোর উদ্যোগ নেওয়া হয়েছে। কেন্দ্রীয় দূষণ নিয়ন্ত্রণ পর্ষদ এর বেঁধে দেওয়া নির্দেশিকা অনুযায়ী বসতি এলাকার থেকে অন্তত ২০০ মিটার এবং স্কুল হাসপাতালে মত ভবন থেকে অন্তত ৫০০ মিটার দূরে গবাদি পশুদের রাখার ব্যবস্থা করতে বলা হয়েছে। বিজ্ঞান সম্মতভাবে সেখানকার আবর্জনা পরিষ্কার এবং জীবাণুমুক্ত করার ওপর জোর দেওয়া হয়েছে। এছাড়াও জলের ব্যবহার নিয়ন্ত্রণ, গবাদি পশুদের বর্জ্যের যথাযথ পুনর্ব্যবহার সম্পর্কে সেখানে একাধিক পরামর্শ দেওয়া হয়েছে। রাজ্যের ডেয়ারি ফার্ম এবং গোশালা গুলোতে নিয়মিত সমীক্ষা চালিয়ে প্রতিবছর অন্তত দুবার কেন্দ্রীয় দূষণ নিয়ন্ত্রণ পর্ষদকে রিপোর্ট দিতে হবে।